মেয়র আতিকের নিরলস প্রচেষ্টায় শুরু হলো দেশের বৃহত্তম কোভিড-১৯ হাসপাতাল

2309

Published on এপ্রিল 21, 2021
  • Details Image
  • Details Image

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সার্বিক দিকনির্দেশনা ও আন্তরিক সহযোগিতার ফলে প্রতিশ্রুতির মাত্র আট মাসের মাথায় রাজধানীর মহাখালীতে দেশের সবচেয়ে বড় "ডিএনসিসি ডেডিকেটেড কোভিড-১৯ হাসপাতাল" এ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসা সেবা কার্যক্রম শুরু হয়েছে।

গত বছর দেশে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ বাড়তে থাকলে মহাখালীতে এক হাজার শয্যার যে আইসোলেশন সেন্টার গড়ে তোলা হয়েছিল ৯ই অগাস্ট সেটি পরিদর্শন করতে গিয়ে ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের সুযোগ্য মেয়র মো: আতিকুল ইসলাম মার্কেটটিকে হাসপাতালে রূপান্তরের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন।

এক হাজার শয্যাবিশিষ্ট এই হাসপাতালটিতে ২১২ শয্যার কোভিড আইসিইউ ইউনিট ছাড়াও ২৫০ শয্যার কোভিড এইচডিইউ এবং ৫০ শয্যার জরুরি বিভাগ রয়েছে। এছাড়া রোগীদের জন্য সেন্ট্রাল অক্সিজেন সরবরাহের ব্যবস্থাও রয়েছে।

এই হাসপাতালের জমি, ভবন, বিদ্যুৎ ও পানির ব্যবস্থা করেছে ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশন-ডিএনসিসি। সাত দশমিক এক সাত একর জমিতে তৈরি বিপণীবিতানকে "ডিএনসিসি ডেডিকেটেড কোভিড-১৯ হাসপাতাল" এ রূপান্তর করা হয়েছে। যার আয়তন এক লাখ ৮০ হাজার ৫৬০ বর্গফুট। নগরবাসীকে সেবা দিতেই মার্কেটের জন্য করা ভবনটিকে হাসপাতালে রূপান্তর করা হয়েছে।

ডিএনসিসির মহাখালী কাঁচাবাজারের ওই মার্কেটটি পূর্বে করোনা আইসোলেশন সেন্টার এবং বিদেশগামীদের করোনা পরীক্ষার ল্যাব হিসেবে ব্যবহৃত হতো। এখন সেখানে করোনা হাসপাতালের কার্যক্রম শুরু হলেও করোনা আইসোলেশন সেন্টার এবং বিদেশগামীদের করোনা পরীক্ষার ল্যাবের কার্যক্রমও পৃথকভাবে চলতে থাকবে ।

Live TV

আপনার জন্য প্রস্তাবিত